শ্রীপুরে শিশুর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

গাজীপুর থেকে মোফাজ্জল হোসেন »

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার দক্ষিণ ধনুয়া নতুনবাজার (নয়নপুর) এলাকা থেকে আট বছর বয়সী এক শিশুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার রাত ১১টার দিকে জাফর আহমেদের ভাড়াটিয়া বাড়ি থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত শিশু রাশিদা নেত্রকোণা জেহলার পূর্বধলা উপজেলার আন্দা গ্রামের রাশেদ মিয়ার কন্যা। রাশিদ মিয়া শ্রীপুরের দক্ষিণ ধনুয়া (নয়নপুর) এলাকার জাফর আহমেদের বাড়ির ভাড়াটিয়া ও স্থানীয় চা-পান বিক্রেতা।

শিশুর বাবা জাফর আহমেদ জানান, মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে তার কন্যা রাশিদাকে ঘরে রেখে বাড়ির পাশেই নিজের চা’য়ের দোকানে যান। পৌণে সাতটায় তার দ্বিতীয় স্ত্রী লিপা বাইরে থেকে বাসায় ফিরে ফ্যানের সাথে কন্যা রাশিদার ঝুলন্ত লাশ দেখে চিৎকার করেন। এতে তিনিসহ আশপাশের লোকজন এসে পুলিশকে খবর দেয়।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, শিশু কন্যাটিকে শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশ ঝুলিয়ে রেখেছে বলে প্রথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দিন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় অপমৃত্যু মামলা করে ঘটনা তদন্ত করা হচ্ছে। কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি।

প্রসঙ্গত, শিশুর মা শেফালী বেগম জানান, গত ১২ বছর আগে রাশেদ মিয়ার সাথে তার বিয়ে হয়। তাদের দুটি কন্যা সন্তান জন্মলাভ করে। স্বামী জাফর গত সাত মাস আগে আরেকটি বিয়ে করে। এ নিয়ে তার স্বামীর সাথে মনোমালিন্য দেখা দিলে সে বাবার পরিবারে চলে যায়। গত ঈদুল আযহার পর তার কন্যা রাশিদাকে স্কুলে পড়ানোর কথা বলে তার বাবা তার কাছ থেকে নিয়ে যায়। তার সতীন লিপা তার কন্যাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে বলে তিনি দাবী করেন। তবে লিপা ওই অভিযোগ অস্বীকার করে প্রকৃত ঘটনা উদঘাটনের দাবি জানান।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »