নবীগঞ্জে নিখোঁজের পর ডোবা থেকে মিশুকচালকের লাশ উদ্ধার

নবীগঞ্জ (হবিগঞ্জ) থেকে মোঃ সেলিম উদ্দিন »

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জে নিখোঁজ হওয়ার চারদিন পর ডোবা থেকে মিশুক চালকের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে নবীগঞ্জ উপজেলার ৮নং সদর ইউনিয়নের সরিষপুর গ্রামের ডোবা থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

গত মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) সন্ধ্যায় নবীগঞ্জ শহর থেকে ২ জন যাত্রী নিয়ে উপজেলার গুজাখাইর গ্রামে যায় পৌর এলাকার কেলী কানাইপুর গ্রামের মিশুকচালক আবিদুর রহমান (১৮)। ফায়ার সার্ভিস যাবার পর ওই যাত্রীরা খাগাপাশা নিয়ে যাওয়ার জন্য বায়না ধরেন। কিন্তু চালক যেতে অনিহা জানালে তারা পুনরায় নবীগঞ্জ শহর এসে নতুন বাজার মোড়ে এসে মাছ ক্রয় করে। একপর্যায়ে হবিগঞ্জ সড়কে গড়মুড়িয়া ব্রীজে নিয়ে যাওয়ার জন্য বলেন। সেখানে যাওয়ার পর গাড়ি ও চালক আর ফিরে আসেনি।

মিশুক চালক আবিদুর পৌর এলাকার কেলী কানাইপুর গ্রামের পাতা মিয়ার ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শুক্রবার সকালে স্থানীয় জনতা ডোবার মধ্যে লাশ দেখতে পেয়ে নবীগঞ্জ থানা পুলিশকে অবগত করলে নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ডালিম আহমদসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাশটি উদ্ধার করেন। এ ঘটনায় নবীগঞ্জে তোলপাড় শুরু হয়েছে। তাৎক্ষণিক ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন নবীগঞ্জ-বাহুবল সার্কেল এএসপি আবুল খায়ের চৌধুরী।

নবীগঞ্জ থানান অফিসার ইনচার্জ ডালিম আহমদ জানান, উদ্ধারকৃত মরাদেহ আবিদুর রহমান এটা এখানো শনাক্ত করা যায়নি। ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত জানা যাবে। ঘটনাটি পুলিশ অনুসন্ধান করছে। কাপড় এবং জুতা দেখে পরিবারের লোকজনের দাবি করছেন মৃতদেহটি আবিদুর রহমানের।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »