জাহিদুল হত্যার ৩ মাস পর রহস্য উম্মোচন

গাজীপুর থেকে মোফাজ্জল হোসেন »

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

গাজীপুরে প্রাইভেটকারচালক জাহিদুল ইসলামকে (৩৫) হত্যার তিন মাস পর রহস্য উম্মোচন করেছে পুলিশ। গ্রেফতার করা হয়েছে দুই ছিনতাইকারীকে।

বৃহস্পতিবার গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) উপ-পুলিশ কমিশনার জাকির হাসান এ তথ্য জানান।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- ঢাকার দক্ষিণখান (ময়নারটেক) এলাকার শিপন (২৩) ও গাজীপুরের টঙ্গী পূর্ব থানার এরশাদ নগর এলাকার রাব্বি (২১)।

জাকির হাসান বলেন, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের এমাজিং ফ্যাশন কারখানার (মালেকের বাড়ি সংলগ্ন) গাড়ি চালক পদে চাকুরি করতেন জাহিদুল ইসলাম। গত ০১ মার্চ রাতে কারখানার কর্মকর্তাদের ঢাকায় নামিয়ে প্রাইভেটকার নিয়ে কারখানায় ফিরছিলেন জাহিদুল। রাত সাড়ে ১১টার দিকে টঙ্গীর মাছিমপুর এলাকার পিপলস সিরামিক কারখানার সামনে পৌঁছে প্রাইভেটকার ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের পাশে দাঁড় করিয়ে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে যান।

এ সময় তিন/চার জন অজ্ঞাতনামা দুষ্কৃতিকারী তাকে ঘেরাও করে তার কাছ থেকে জিনিসপত্র ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। তাদেরকে বাঁধা দিলে দুষ্কৃতিকারীরা মাথা ও পায়ে ছুরিকাঘাত করে। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। ঘটনাস্থলের পাশে থাকা পুলিশের টহল দল এগিয়ে আসলে দুষ্কৃতিকারীরা পালিয়ে যায়। পরে তাকে স্থানীয় টঙ্গী শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জাহিদুল ইসলামকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় জাহিদের বড় ভাই সাইফুল ইসলাম বাদি হয়ে টঙ্গী পশ্চিম থানায় মামলা দায়ের করেন। তদন্তকালে পুলিশ সিসিটিভির ফুটেজ ও নানা তথ্য সংগ্রহ করে। ওই ফুটেজের সূত্র ধরে ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে পুলিশ শিপন ও রাব্বিকে বুধবার (০২ জুন) রাতে আটক করে। জিজ্ঞাসাবাদকালে তারা চালক জাহিদুলকে হত্যার কথা স্বীকার করে। ছিনতাইকালে বাঁধা দেওয়ায় জাহিদুলের মাথায় ও ডান পায়ের উরুতে ছুরিকাঘাত করা হয় বলে গ্রেফতারকৃতরা জানিয়েছে।

তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত চাকু বৃহস্পতিবার (০৩ জুন) স্থানীয় কাদেরিয়া টেক্সটাইল মিলের দেওয়াল সংলগ্ন পরিত্যাক্ত জায়গা থেকে উদ্ধার করা হয়। এর প্রেক্ষিতে ক্লুলেস এ ঘটনার প্রায় তিন মাস পর গাড়িচালক জাহিদুল ইসলামকে হত্যার রহস্য উন্মোচন হলো। গ্রেফতারকৃতরা পেশাদার ছিনতাইকারী। তাদের বিরুদ্ধে পূর্বেও ছিনতাই ও মাদকের মামলা রয়েছে।

শেয়ার করুন »

মন্তব্য করুন »